বুয়েট-মেরিটাইম বিশ্ববিদ্যালয় দল আন্তর্জাতিক ফেরি নকশা প্রতিযোগিতায় ৩য়

বাংলাদেশসহ বিশ্বের প্রায় সব দেশেই ফেরির প্রচলন রয়েছে। ১৮১১ সালে তৈরি এ যানটি বিশ্বের অন্যান্য দেশের মতই আমাদের বাংলাদেশেও জনপ্রিয়। মূলত নদীমাতৃক দেশ হওয়ায় আমাদের দেশে এটি অপরিহার্য একটি অংশ। ফলে এর নিরাপদ ব্যবহারও খুব জরুরী। সে লক্ষ্যেই প্রতিবছর ‘বিশ্ব ফেরি নিরাপত্তা সংঘ নকশা প্রতিযোগিতা’ নামের একটি প্রতিযোগিতা আয়োজন করে একটি আন্তর্জাতিক অলাভজনক সংস্থা—বিশ্ব ফেরি নিরাপত্তা সংঘ

এ প্রতিযোগিতার ২০২১ আসরে বিশ্বের বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়কে পেছনে ফেলে তৃতীয় হয়েছে ‘টিম টউকান‘। প্রতিযোগিতায় প্রথম হয় জার্মানির সিটি ইউনিভার্সিটি অব অ্যাপ্লায়েড সায়েন্সেস; দ্বিতীয় হয়েছে ইন্দোনেশিয়ার আইটিএস সুরাবায়াটিম টউকান দলে ছিলেন বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) রৌনক সাহা, পরমা রায় চৌধুরী, মোহাম্মদ আবরার উদ্দিন এবং বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেরিটাইম বিশ্ববিদ্যালয়ের (বশেমুরমেবি) মো. শরিফুল ইসলাম

টিম টউকান; বাঁ থেকে মো. শরিফুল ইসলাম, রৌনক সাহা, মোহাম্মদ আবরার উদ্দিন ও পরমা রায় চৌধুরী
টিম টউকান; বাঁ থেকে মো. শরিফুল ইসলাম, রৌনক সাহা, মোহাম্মদ আবরার উদ্দিন ও পরমা রায় চৌধুরী

এবারের আসরের চ্যালেঞ্জ ছিল ব্রাজিলের অ্যামাজন নদীর মানাস বন্দর থেকে টেফে বন্দর পর্যন্ত ৩০০ যাত্রী বহনের উপযোগী রোপ্যাক্স ফেরির নকশা তৈরি করা। এক্ষেত্রে এই ফেরিটিকে নানা ধরনের গাড়ি, কৃষিপণ্যসহ ২০ ঘণ্টার পথ অতিক্রম করতে হবে। টিম টউকান জানায়, এ ফেরির নকশাটি তৈরি করতে প্রায় সাত মাস সময় লেগেছে। এই নকশাটি দেখতে নিচের ভিডিওটি দেখুন।

Md. Ashraful Alam Shemulhttps://www.STechBD.Net
শিমুল একজন প্রযুক্তিপ্রেমী ❤️ তিনি বিজ্ঞান, প্রযুক্তি ও ধর্ম নিয়ে লেখালেখি করতে ভালোবাসেন।

সাম্প্রতিক লেখা

সম্পর্কিত লেখা

spot_imgspot_img